Scrooling

ঘূর্ণিঝড় রিমাল : পূর্ব বর্ধমানে ৪টি ব্লক ক্ষতিগ্রস্ত, মৃত ২ # চুরুলিয়ায় ৫ দিন ব্যাপী নজরুল স্মরণে বর্ণময় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও মেলা # নন্দীগ্রামে বিজেপি সমর্থক খুনে রিপোর্ট চাইলো কমিশন # ১৮ তম লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল জানা যাবে ৪ জুন

দুর্গাপুজো উপলক্ষে মন্তেশ্বরের কালুই গ্রামে অসিত চ্যাটার্জীর উদ্যোগে সামাজিক কর্মসূচিতে বিশিষ্টজনের সমাবেশ


 

দুর্গাপুজো উপলক্ষে মন্তেশ্বরের কালুই গ্রামে অসিত চ্যাটার্জীর উদ্যোগে সামাজিক কর্মসূচিতে বিশিষ্টজনের সমাবেশ 




Lutub Ali
Sangbad Prabhati, 25 October 2023

লুতুব আলি, মন্তেশ্বর : পূর্ব বর্ধমান জেলার মন্তেশ্বর ব্লকের মালডাঙ্গার কালুই গ্রামে ব্যক্তিগত উদ্যোগে অনুষ্ঠিত হল ফুটবল ম্যাচ, এলাকার দুস্থ মানুষদের নতুন জামা কাপড় বিতরণ, মশারি বিতরণ এবং মধ্যাহ্ন ভোজ। দুর্গাপুজো উপলক্ষে মন্তেশ্বরের ভূমিপুত্র মোহনবাগান ক্লাবের সহ-সভাপতি, মানবরত্ন সম্মান প্রাপক অসিত চ্যাটার্জীর উদ্যোগে এই মহতী অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। 

সপ্তমী থেকে প্রতি দিনই ফুটবল প্রতিযোগিতা চলে। নবমীর দিন প্রদর্শনী ফুটবল ম্যাচে হাজির ছিলেন রাজ্যের প্রাণীসম্পদ বিকাশ দপ্তরের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ, কাটোয়ার বিধায়ক তথা পূর্ব বর্ধমান জেলার তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি রবীন্দ্রনাথ চ্যাটার্জী, রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী তথা বিধায়ক মদন মিত্র, দক্ষিণ বঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন সংস্থার চেয়ারম্যান সুভাষ মন্ডল, অসিত বাবুর একমাত্র পুত্র তন্ময় চ্যাটার্জী, মন্তেশ্বর পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি শেখ আহমেদ হোসেন, অভিনেত্রী বুলবুলি পাঁজা প্রমুখ। 


প্রায় তিন দশকের ওপর অসিত চ্যাটার্জীর ব্যক্তিগত উদ্যোগে দুর্গাপূজো উপলক্ষে ধারাবাহিকভাবে দরিদ্র নারায়ণ সেবা, দুস্থ মানুষদের নতুন জামা কাপড় প্রদান করা হচ্ছে।। এছাড়াও প্রতিদিনই কোন না কোন সামাজিক কাজের সঙ্গে অসিতবাবু নিজেকে নিয়োজিত রাখেন। সমগ্র রাজ্য ব্যাপী তাঁর সমাজ সেবার পরিধি ছড়িয়ে পড়েছে। এরমধ্যে থ্যালাসেমিয়া রোগীদের রক্তদান, গণবিবাহ উল্লেখযোগ্য। "শিব জ্ঞানে জীব সেবা" এই দর্শনকে অসিত বাবু মান্যতা দিয়ে চলেছেন। উল্লেখ্য গত ১৬ আগস্ট খেলা দিবসে মন্তেশ্বর ব্লকের মালডাঙ্গার কালুই গ্রামে তিন কন্যা পার্কে পূর্ব বর্ধমান, পশ্চিম বর্ধমান, হুগলি, মুর্শিদাবাদ, নদীয়ার ৬৪ টি দল নিয়ে ফুটবল প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। নবমীতে তার পরিসমাপ্তি ঘটে। সপ্তমীতে মোহনবাগান ফ্যান ক্লাব অসিত চ্যাটার্জী একাদশ বনাম ভাতার এস ডি হাউস একাদশের মধ্যে ফুটবল খেলা অনুষ্ঠিত হয়। এই খেলায় ভাতার এস ডি হাউস একাদশ এক গোলে জয় লাভ করে। জয়ী দলকে নগদ ১২ হাজার টাকা ক্যাশ ও একটি ট্রফি তুলে দেওয়া হয়। বিজেতা দলকে দেওয়া হয় ৯ হাজার টাকা। অষ্টমীতে মানগোবিন্দ অধিকারী একাদশ ভাতার বিধায়ক বনাম অসিত চ্যাটার্জী একাদশ এই দুটি দলের মধ্যে ফুটবল প্রতিযোগিতা হয়। এই খেলায় অসিত চ্যাটার্জী একাদশ ৪ গোলে জয় লাভ করে। নবমীতে মেমারি সোনা একাদশ বনাম বাবা বুড়োরাজ কৃষি ভান্ডার এন্ড মন্ডল এন্টারপ্রাইজ এর মধ্যে ফুটবল ফাইনাল খেলায় মেমারি সোনা একাদশ ট্রাইবেকারে ৫-৩ গোলে জয়ী হয়। বিজয়ী দল নগদ ১২ হাজার টাকা ও একটি ট্রফি এবং বিজেতা দল নগদ ৯ হাজার টাকা সহ একটি ট্রফি দেওয়া হয়। তিন কন্যা পার্ক মোহনবাগান অ্যাথলেটিক্স ফ্যান ক্লাব এর পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে যে ট্রফি গুলি প্রদান করা হয়েছে সেগুলি ক্লাবগুলিকে আর ফেরত দিতে হবে না। এক সাক্ষাৎকারে অসিত চ্যাটার্জী বলেন, এলাকার খেলাধুলার মানোন্নয়নে তিন কন্যা পার্কে খেলার মাঠ গড়ে তুলেছি। এলাকার ছেলেমেয়েরা এই খেলার মাঠে ধারাবাহিকভাবে তারা ফুটবল প্র্যাকটিস করেন। ভালো খেলোয়াড়দের কলকাতায় নামিদামি ফুটবল দলে নিয়ে গিয়ে খেলানো হয়েছে। ভারতবর্ষের বিশিষ্ট ফুটবল খেলোয়াড় দের পদধুলিতে এই তিন কন্যা খেলার মাঠ ধন্য হয়েছে। তিন কন্যা পার্ক মোহনবাগান অ্যাথলেটিক্স ফ্যান ক্লাব এর পক্ষ থেকে মালেক শেখ, বিলাস রুদ্র, অনিমেষ খান, সুকুমার পাল, রাজীব চক্রবর্তী, পার্থ ঘোষ, প্রসেনজিৎ কুন্ডু, ভাস্কর চ্যাটার্জী, বিশ্বজিৎ চ্যাটার্জী, গিয়াস মোল্লা, মনোয়ার আলী, শেখ তোতা খান, অচিন্ত্য রায়, রামপ্রসাদ দে, আশিস নন্দী, তুফান দে, বুলবুল রায়, জয়ন্ত কুন্ডু, সুকুমার পাল প্রমুখ বিভিন্ন দিনের খেলায় সকলকে সম্ভাষণ করেন।