Scrooling

ঘূর্ণিঝড় রিমাল : পূর্ব বর্ধমানে ৪টি ব্লক ক্ষতিগ্রস্ত, মৃত ২ # চুরুলিয়ায় ৫ দিন ব্যাপী নজরুল স্মরণে বর্ণময় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও মেলা # নন্দীগ্রামে বিজেপি সমর্থক খুনে রিপোর্ট চাইলো কমিশন # ১৮ তম লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল জানা যাবে ৪ জুন

World Cup Football বিশ্বকাপ ফুটবলের উন্মাদনার উত্তাপ এবার বাংলার রাজনৈতিক মহলে, সম্প্রীতির খেলায় ছাত্র-যুব সংগঠন


 

World Cup Football

বিশ্বকাপ ফুটবলের উন্মাদনার উত্তাপ এবার বাংলার রাজনৈতিক মহলে, সম্প্রীতির খেলায় ছাত্র-যুব সংগঠন 


ডিজিটাল ডেস্ক রিপোর্ট, সংবাদ প্রভাতী : বিশ্বকাপ ফুটবলের কোয়ার্টার ফাইনালে মুখোমুখি হচ্ছে নীল-সাদা আর গেরুয়া। ফলে খেলার মাঠের উত্তাপ এখন বাংলার রাজনৈতিক মহলে। ফুটবল বিশ্বকাপ কে সামনে রেখে সিপিআইএম এর ছাত্র ও যুব সংগঠন এস এফ আই এবং ডি ওয়াই এফ আই পূর্ব বর্ধমান জেলা কমিটির ডাকে বর্ধমানে সম্প্রীতির মিছিলে পা মেলালো বহু মানুষ। পাশাপাশি বর্ধমান মিউনিসিপ্যাল স্কুলের মাঠে এস এফ আই বনাম ডি ওয়াই এফ আই ক্রস জেন্ডার ফুটবল ম্যাচ খেলা হল। 

বৃহস্পতিবার পার্কাস রোডে সিপিআইএম এর জেলা দপ্তরের সামনে থেকে মিছিল শুরু হয়ে কার্জন গেট হয়ে বর্ধমান মিউনিসিপ্যাল স্কুলের মাঠ অবধি মিছিল হয়। বিভিন্ন দেশের সমর্থকরা তাদের প্রিয় দেশের ভালোবাসার ঝান্ডা নিয়ে জার্সি পরে এই মিছিলে ও খেলায় অংশ নিয়েছিল। এস এফ আই এবং ডি ওয়াই এফ আই এর পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে একদিকে ব্রাজিল পর্তুগাল, ফ্রান্স, জার্মানী, আর্জেন্টিনার লড়াই অন্যদিকে সবার একসাথে এক মিছিলে পা মেলানোর মাধ্যমে তারা বিশ্বের কাছে সম্প্রীতির বার্তা দিচ্ছে শান্তির বার্তা ,একসাথে লড়াইয়ের বার্তা র আহ্বান ওঠে মিছিলের কোরাস থেকে ও ক্রস জেন্ডার ফুটবল ম্যাচের মাধ্যমে তারা নারী পুরুষের সমানাধিকার, খেলাধুলা থেকে শুরু করে সমাজের প্রতিটি স্তরে সকলের সমান অধিকারের বার্তা দেওয়া হয়। এদিনের মিছিলে বিভিন্ন দেশের পতাকার পাশাপাশি ছিল পেলে, ম্যারাডোনা থেকে শুরু করে মুলার সক্রেটিস এর ছবি আবার তার সাথেই মিছিলে অংশ গ্রহণকারীদের হাতে ছিল ইরানের প্রতিবাদী নারী মাসা আমানীর ছবি, ছিল প্রতিবাদী সাংবাদিক মিস কিকের ছবিও। খেলা শেষে ম্যাচে অংশ গ্রহণকারী দুই দল এস এফ আই একাদশ এবং ডি ওয়াই এফ আই একাদশ এর দুই অধিনায়ক পার্থ দাস ও চন্দন ভট্টাচার্যের হাতে ম্যাচের ট্রফি তুলি দেন খেলার রেফারি অজয় ভট্টাচার্য।

এস এফ আই এর জেলা সম্পাদক অনির্বাণ চৌধুরী জানান, আমাদের দেশে ধর্ম নিয়ে বিভাজন চলছে, কাতারে চলছে ফতোয়া, চলছে লিঙ্গ বৈষম্য। আমরা সারা বিশ্ব কে বার্তা দিতে চাইছি না ধর্ম, না বর্ণ, না লিঙ্গ বৈষম্য। চাই ঐক্য ও সম্প্রীতির বিশ্ব।