চৈতন্য মহাপ্রভু'র নামে নব নির্মিত তোরণ উদ্বোধন কাটোয়ার দাঁইহাটে

উচ্চ মাধ্যমিকে রাজ্যের সেরা অদিশা দেবশর্মা, দশের মেধা তালিকায় ২৭২ জন # মাধ্যমিকে যুগ্ম প্রথম বর্ধমান সিএমএস হাই স্কুলের রৌনক মন্ডল এবং বাঁকুড়ার রাম হরিপুর রামকৃষ্ণ মিশনের অর্ণব ঘড়াই # আধার কার্ডের ফটোকপির অপব্যবহার রুখতে বিজ্ঞপ্তি জারি # ইউনেস্কো'র সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের তালিকায় পশ্চিমবঙ্গের দুর্গাপুজো # বাংলার চিকিৎসক উজ্জ্বল পোদ্দার স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের সেরার তালিকায়মাধ্যমিকের পর উচ্চমাধ্যমিকেও তাক লাগালো কাটোয়ার অভীক পশ্চিমবঙ্গে কোভিড বিধিনিষেধ প্রত্যাহার #১০০ দিনের কাজের বকেয়া টাকা নিয়ে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে তৃণমূল কংগ্রেসের আন্দোলন

সর্বমিলন সংঘ ও চৌরঙ্গী ক্লাবের দুর্গাপুজোর ক্রেজ বেড়ে গেল


 

সর্বমিলন সংঘ ও চৌরঙ্গী ক্লাবের দুর্গাপুজোর ক্রেজ বেড়ে গেল 


ডিজিটাল ডেস্ক রিপোর্ট, সংবাদ প্রভাতী : অষ্টমীতেই বিপত্তি ঘটলো শহর বর্ধমানের দুটি মন্ডপে। আসলে  ভাবনার বৈচিত্র্যে  সর্বমিলন সংঘের মন্ডপ এবার ৭৫ ফুট উঁচু। এখানে থিম হয়েছে "আদি যোগী"।  অন্যদিকে চৌরঙ্গী ক্লাবের পুজোর এবারের থিম ‘ফিরে দেখা "রক্তাক্ত কার্গিল"। এখানেও পাহাড়ের উপরে উঠে প্রতিমা দর্শন করতে হবে। এই দুটি বড় পুজোর মণ্ডপে ওঠার প্রবেশ পথ বিপদসঙ্কুল বলে দর্শনার্থীদের জন্য পুজো দেখা বন্ধ করে দিয়েছিল প্রশাসন। বর্ধমান থানার পুলিশ ও পূর্ত দপ্তরের ইঞ্জিনিয়াররা শহরের সর্বমিলন সংঘ ও চৌরঙ্গী ক্লাবের মণ্ডপ পরিদর্শনের পর এমনই সিদ্ধান্ত নেয়। দুটো  মণ্ডপেরই মাটি থেকে উপরে ওঠার জন্য  বাঁশ ও লোহার যে কাঠামো তৈরি করা হয়েছিল, সেই কাঠামো খুব একটা মজবুত নয়।  প্রশাসনের পক্ষ থেকে পরিদর্শনের পর পূর্ত দপ্তরের ইঞ্জিনিয়ার এমনই মন্তব্য করেছেন। এদিন পরিদর্শনের সময়  পূর্ব বর্ধমান জেলা পুলিশের ডিএসপি  ট্রাফিক রাকেশ চৌধুরি, বর্ধমান থানার আই সি সুখময় চক্রবর্তী। উদ্যোক্তারা প্রশাসনিক সিদ্ধান্তের পরই মন্ডপের কাঠামো শক্ত-পোক্ত করার কাজ শুরু করে। পরে দ্বিতীয় দফার পরিদর্শনের পর আবার বর্ধমানের সর্বমিলন সংঘের পূজা মন্ডপ দর্শনার্থীদের জন্য খুলে দেওয়া হলো। তবে একসাথে ২০ জনের বেশি দর্শক মন্ডপে প্রবেশ করতে পারবে না এই শর্তে আবার প্রশাসনের পক্ষ থেকে দর্শনার্থীদের জন্য খুলে দেওয়া হলো সর্বমিলন সংঘের পূজা মন্ডপ। 

অন্যদিকে প্রশাসনের ছাড়পত্র পেতে নীলপুরের চৌরঙ্গী ক্লাবের মন্ডপেও জোর কদমে কাজ চলছে। উদ্যোক্তাদের আশা দ্বিতীয় দফা পরিদর্শনের পর তাদের মন্ডপও প্রশাসনের ছাড়পত্র পাবে। সব মিলিয়ে এই দুটো পুজোর মন্ডপ ও প্রতিমা দর্শনে ক্রেজ বেড়ে গেল।


Post a Comment

0 Comments