চৈতন্য মহাপ্রভু'র নামে নব নির্মিত তোরণ উদ্বোধন কাটোয়ার দাঁইহাটে

হাওড়া-নিউ জলপাইগুড়ি বন্দে ভারত এক্সপ্রেসের যাত্রার সূচনা করলেন প্রধানমন্ত্রী # ফুটবলে আর্জেন্টিনার বিশ্বজয়, ফ্রান্স কে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ান মেসি # জয়েন্ট এন্ট্রান্স (মেইন) এর প্রথমভাগের পরীক্ষা ২৪ জানুয়ারি থেকে ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত # বর্ধমান জেলা রাইস মিলস অ্যাসোসিয়েশন এর শতবর্ষ পূর্তি উদযাপন # বাংলার চিকিৎসক উজ্জ্বল পোদ্দার স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের সেরার তালিকায় #সরকারি কর্মচারীদের সুখের দিন শেষ, শ্রম কোড চালু হতে চলেছে সমগ্র ভারতে # পশ্চিমবঙ্গে কোভিড বিধিনিষেধ প্রত্যাহার # #পূর্ব বর্ধমান জেলায় মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ এর উদ্যোগে খালবিল ও চুনোমাছ উৎসবের উদ্বোধন ২৫ ডিসেম্বর

জেলা পরিষদের উদ্যোগে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি


 

জেলা পরিষদের উদ্যোগে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি 


অতনু হাজরা, জামালপুর : বিশ্ব উষ্ণায়নের যুগে পরিবেশ রক্ষা করাই আজ সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ন বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে। রাজ্য জুড়ে প্রতিটি জেলা পরিষদের পক্ষ থেকে চলছে চারা গাছ বসানোর কাজ। পূর্ব বর্ধমান জেলা পরিষদের পক্ষ থেকে জেলা জুড়ে আজ বৃক্ষ রোপণ কর্মসূচী পালন করা হয়। জামালপুর ব্লকেও ১৩ টি  পঞ্চায়েতে  আজ এই বৃক্ষ রোপণ কর্মসূচি পালন করা হয়। সেখানে প্রতি পঞ্চায়েতের প্রধান উপ প্রধান সহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।জামালপুর ব্লক প্রশাসনের পক্ষ থেকে  আজ জামালপুর ১ পঞ্চায়েতের হালারা সংসদে রাজ্য সড়কের ধারে শিশু, দেবদারু, শিরিষ, নিম সহ অন্যান্য গাছ বসানো হয়।  

এদিনের  কর্মসূচিতে বৃক্ষ রোপণ করেন বিডিও শুভঙ্কর মজুমদার, পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি মেহেমুদ খান, জেলা পরিষদের নারী ও শিশু কল্যাণ দপ্তরের কর্মাধ্যক্ষ মিঠু মাঝি, পঞ্চায়েত সমিতির পূর্ত কর্মাধ্যক্ষ ভূতনাথ মালিক, জয়েন্ট বিডিও অরিন্দম চন্দ সহ অন্যান্যরা। মেহেমুদ খান বলেন, রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর নজর সব সময় সবদিকে বিভিন্ন প্রকল্পের সাথে পরিবেশ রক্ষায় এই বৃক্ষ রোপন কর্মসূচি পালন করার কথাও বলেন। সেই মোতাবেক জেলা পরিষদের পক্ষ থেকে পরিবেশ রক্ষায় এই উদ্যোগ যথেষ্ট প্রশংসনীয় বলে তিনি জানান।পরিবেশে গাছের আজ অত্যন্ত প্রয়োজন। বিডিও শুভঙ্কর মজুমদার বলেন, বর্তমান দিনে গাছ বসাবার  প্রয়োজনীয়তা নতুন করে বলার কিছু নেই, তাই জেলা পরিষদের পক্ষ থেকে এই বৃক্ষ রোপণ কর্মসূচিতে তিনি অংশ গ্রহণ করেছেন। তাঁর ব্লকের প্রতিটি পঞ্চায়েতে এই কর্মসূচি চলছে।

পূর্ব বর্ধমান জেলা পরিষদের কর্মাধ্যক্ষ মিঠু মাঝি বলেন, করোনা অতিমারি আমাদের শিক্ষা দিয়ে গেছে পরিবেশের গুরুত্ব কতটা। সামান্য অক্সিজেনের জন্য মানুষকে অসহায় অবস্থায় ছুটে বেড়াতে হয়েছে। তাই বেশি সংখ্যক বৃক্ষ রোপণ হলে অক্সিজেনের সংকটও কমবে।


Post a Comment

0 Comments