চৈতন্য মহাপ্রভু'র নামে নব নির্মিত তোরণ উদ্বোধন কাটোয়ার দাঁইহাটে

উচ্চ মাধ্যমিকে রাজ্যের সেরা অদিশা দেবশর্মা, দশের মেধা তালিকায় ২৭২ জন # মাধ্যমিকে যুগ্ম প্রথম বর্ধমান সিএমএস হাই স্কুলের রৌনক মন্ডল এবং বাঁকুড়ার রাম হরিপুর রামকৃষ্ণ মিশনের অর্ণব ঘড়াই # আধার কার্ডের ফটোকপির অপব্যবহার রুখতে বিজ্ঞপ্তি জারি # ইউনেস্কো'র সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের তালিকায় পশ্চিমবঙ্গের দুর্গাপুজো # বাংলার চিকিৎসক উজ্জ্বল পোদ্দার স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের সেরার তালিকায়মাধ্যমিকের পর উচ্চমাধ্যমিকেও তাক লাগালো কাটোয়ার অভীক পশ্চিমবঙ্গে কোভিড বিধিনিষেধ প্রত্যাহার #১০০ দিনের কাজের বকেয়া টাকা নিয়ে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে তৃণমূল কংগ্রেসের আন্দোলন

আধার কার্ডের ফটোকপির অপব্যবহার রুখতে বিজ্ঞপ্তি জারি, আধার কার্ডধারিরা সচেতন হোন


 

আধার কার্ডের ফটোকপির অপব্যবহার রুখতে বিজ্ঞপ্তি জারি, আধার কার্ডধারিরা সচেতন হোন 


ডিজিটাল ডেস্ক রিপোর্ট, সংবাদ প্রভাতী : আপনার আধার কার্ডের ফটোকপি কোনও সংস্থার সাথে শেয়ার করার আগে জেনে নেবেন তাদের এই ফটোকপি কতটা জরুরি বা সংশ্লিষ্ট সংস্থার আধার কার্ডের ফটোকপি নেওয়ার অধিকার আছে কিনা। বিশদ না জেনে শেয়ার করবেন না।  কেন্দ্রীয় সরকারের ইলেক্ট্রনিক্স ও তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রক এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এমনটাই জানিয়েছে। আসলে আধার কার্ডের অপব্যবহার হতে পারে, এমনই আশঙ্কায় কেন্দ্রীয় সরকারের ইলেক্ট্রনিক্স ও তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রক প্রেস বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে। বিকল্প হিসেবে অনুগ্রহ করে মাস্কড আধার ব্যবহার করার পরামর্শ দিয়েছেন ইউআইডিএআই এর বেঙ্গালুরু রিজিওনাল অফিস। 

যা আধার নম্বরের শেষ চারটি সংখ্যা প্রদর্শন করে। বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়েছে, লাইসেন্সবিহীন বেসরকারি সংস্থাগুলির আধার কার্ডের একটি অনুলিপি দাবি করার বা রাখার অধিকার নেই।  আরও বলা হয়েছে, শুধুমাত্র সেই সংস্থাগুলি যারা ভারতের অনন্য পরিচয় আধার কর্তৃপক্ষ থেকে লাইসেন্স পেয়েছে তারাই কোনও ব্যক্তির পরিচয় প্রতিষ্ঠা করতে আধার ব্যবহার করতে পারে। সরকার নাগরিকদের তাদের আধার কার্ড শেয়ার করার আগে আধার কর্তৃপক্ষ  বৈধ লাইসেন্স আছে কিনা তা যাচাই করতে বলেছে।

সেই সঙ্গে সরকার মানুষকে তাদের আধার কার্ড ডাউনলোড করতে ইন্টারনেট ক্যাফেতে পাবলিক কম্পিউটার ব্যবহার না করার জন্য সতর্ক করা হয়েছে।  এ নিয়ে বলা হয়েছে, যদি আপনি ডাউনলোড করেন তবে দয়া করে নিশ্চিত করুন যে আপনি সেই কম্পিউটার থেকে ই-আধারের ডাউনলোড করা সমস্ত কপি স্থায়ীভাবে মুছে ফেলেছেন।  আধার কার্ডের অপব্যবহার করতে না পারে তার জন্য  আধার কার্ডের একটি মুখোশধারী কপি শেয়ার করতে বলা হয়েছে। প্রত্যেক কার্ডধারী সহজেই তার আধারের মাস্কড কপি ডাউনলোড করতে পারেন। তবে এখন থেকে কোথাও আধার কার্ডের ফটোকপি দেওয়ার আগে নিশ্চিত হতে হবে তাদের আধার কার্ডের ফটোকপি নেওয়ার লাইসেন্স আছে কিনা।

এদিকে সর্বশেষ খবরে প্রকাশ আধারের ফটোকপি না দিয়ে 'মাস্কড আধার' দেওয়ার নির্দেশিকা প্রত্যাহার হয়ে গেল। সরকারি তরফে বলা হয়েছে, 'এতে ভুল ব্যাখ্যার সম্ভাবনা থেকে যাচ্ছে।' তার বদলে আধার দেওয়ার সময় আরও সতর্ক হওয়ার পরামর্শ দিল কেন্দ্রীয় সরকার।

Post a Comment

0 Comments