চৈতন্য মহাপ্রভু'র নামে নব নির্মিত তোরণ উদ্বোধন কাটোয়ার দাঁইহাটে

হাওড়া-নিউ জলপাইগুড়ি বন্দে ভারত এক্সপ্রেসের যাত্রার সূচনা করলেন প্রধানমন্ত্রী # ফুটবলে আর্জেন্টিনার বিশ্বজয়, ফ্রান্স কে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ান মেসি # জয়েন্ট এন্ট্রান্স (মেইন) এর প্রথমভাগের পরীক্ষা ২৪ জানুয়ারি থেকে ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত # বর্ধমান জেলা রাইস মিলস অ্যাসোসিয়েশন এর শতবর্ষ পূর্তি উদযাপন # বাংলার চিকিৎসক উজ্জ্বল পোদ্দার স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের সেরার তালিকায় #সরকারি কর্মচারীদের সুখের দিন শেষ, শ্রম কোড চালু হতে চলেছে সমগ্র ভারতে # পশ্চিমবঙ্গে কোভিড বিধিনিষেধ প্রত্যাহার # #পূর্ব বর্ধমান জেলায় মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ এর উদ্যোগে খালবিল ও চুনোমাছ উৎসবের উদ্বোধন ২৫ ডিসেম্বর

অনলাইন পরীক্ষার দাবিতে বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজবাটি ক্যাম্পাসে ছাত্র-ছাত্রীদের বিক্ষোভ


 

অনলাইন পরীক্ষার দাবিতে বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজবাটি ক্যাম্পাসে ছাত্র-ছাত্রীদের বিক্ষোভ 


ডিজিটাল ডেস্ক রিপোর্ট, সংবাদ প্রভাতী : বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ে পরীক্ষা বিতর্কে পড়ুয়াদের বিক্ষোভে উত্তপ্ত হল বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজবাটি ক্যাম্পাস। অনলাইন পরীক্ষার দাবিতে সরব হয়েছে বিক্ষোভকারীরা। অনলাইনে পরীক্ষা না হলে পরীক্ষা বয়কটের হুঁশিয়ারিও দিয়েছে পড়ুয়ারা। তবে এ যেন একেবারেই উলোট পূরাণ কাণ্ড। কোভিড অতিমারির প্রভাব কেটে গেলেও অফলাইনে পরীক্ষা দিতে নারাজ কলেজ পড়ুয়ারা। তাঁরা তুমুল বিক্ষোভে সামিল হয়েছে অনলাইনে পরীক্ষা নেওয়ার দাবীতে। এমনকি দাবি আদায়ের জন্যে মঙ্গলবার কলেজ পড়ুয়ারা বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয় চত্ত্বরে জমায়েত হয়ে অবস্থান বিক্ষোভে বসে পড়ে।  বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে যে সমস্ত কলেজ আছে সেইসব কলেজের ছাত্রছাত্রীরাই এদিন অনলাইনে পরীক্ষার দাবীতে আন্দোলনে নামে।

বিক্ষোভকারীরা জানায়, ’কোভিড অতিমারি সময় থেকে অনলাইনে ক্লাস হয়েছে। প্র্যাকটিক্যাল ঠিক মতো হয়নি। এখন বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ সমস্ত পরীক্ষা অফলাইনে হবে বললে ছাত্র-ছাত্রীদের পক্ষে পরীক্ষা দেওয়া সম্ভব নয়। সেই কারণেই তাঁরা অফলাইনের পরিবর্তে অনলাইন পরীক্ষা নেওয়ার দাবী করছে। বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ যতক্ষণ না পর্যন্ত এই দাবী মেনে নিচ্ছেন ততক্ষণ বিক্ষোভ চলবে বলে জানায় ছাত্র-ছাত্রীরা। তাদের সাফ কথা ক্লাস যখন অনলাইনে হয়েছে পরীক্ষাও তখন অনলাইনেই হোক। 

বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য নিমাই চন্দ্র সাহা জানান, বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ তাঁদের সিদ্ধান্ত আগেই জানিয়ে দিয়েছে। এখনও ওই সিদ্ধান্ত বহাল আছে। বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্তর্ভুক্ত ৬৩ টি কলেজে ৩৫ হাজার পড়ুয়া আছে বলেও উপাচার্য নিমাই চন্দ্র সাহা জানিয়েছেন।

যদিও একই দাবীতে তৃণমূল ছাত্র পরিষদের পক্ষ থেকেও ইতিপূর্বে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের কাছে স্মারকলিপি দেওয়া হয়েছে। 

Post a Comment

0 Comments