চৈতন্য মহাপ্রভু'র নামে নব নির্মিত তোরণ উদ্বোধন কাটোয়ার দাঁইহাটে

উচ্চ মাধ্যমিকে রাজ্যের সেরা অদিশা দেবশর্মা, দশের মেধা তালিকায় ২৭২ জন # মাধ্যমিকে যুগ্ম প্রথম বর্ধমান সিএমএস হাই স্কুলের রৌনক মন্ডল এবং বাঁকুড়ার রাম হরিপুর রামকৃষ্ণ মিশনের অর্ণব ঘড়াই # আধার কার্ডের ফটোকপির অপব্যবহার রুখতে বিজ্ঞপ্তি জারি # ইউনেস্কো'র সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের তালিকায় পশ্চিমবঙ্গের দুর্গাপুজো # বাংলার চিকিৎসক উজ্জ্বল পোদ্দার স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের সেরার তালিকায়মাধ্যমিকের পর উচ্চমাধ্যমিকেও তাক লাগালো কাটোয়ার অভীক পশ্চিমবঙ্গে কোভিড বিধিনিষেধ প্রত্যাহার #১০০ দিনের কাজের বকেয়া টাকা নিয়ে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে তৃণমূল কংগ্রেসের আন্দোলন

তৃণমূল প্রার্থীর নির্বাচনী প্রচারে কোভিড বিধি শিকেয়


 

তৃণমূল প্রার্থীর নির্বাচনী প্রচারে কোভিড বিধি শিকেয়


কাজল মিত্র, আসানসোল : কোভিড বিধি উপেক্ষা করেই তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থীর নির্বাচনী প্রচারে আলোড়ন ছড়িয়েছে। আসানসোল পৌর নিগম এলাকার ঘটনা। রবিবার আসানসোল পৌর নিগমের ৬১ নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী বাদল পুইতন্ডি এলাকায় ভোটের প্রচার করতে বেড়িয়েছিলেন। তবে কোভিড বিধি ভুলেই চলল নির্বাচনী প্রচার। অথচ শনিবারই রাজ্যের মন্ত্রী মলয় ঘটক আসানসোল পৌর নিগম নির্বাচনে তৃণমূল কংগ্রেসের ১০৬ জন প্রার্থীকে নিয়ে বৈঠক করে সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন প্রচারে পাঁচ জনের বেশি নয়। সেই বৈঠকে দলের পশ্চিম বর্ধমান জেলা সভাপতি তথা বিধায়ক বিধান উপাধ্যায়, বিধায়ক নরেন চক্রবর্তী সহ অন্যান্য নেতৃত্ব উপস্থিত ছিলেন। কিন্তু তৃণমূল প্রার্থীর প্রচারের শুরুতেই বিধিভঙ্গ হলো। আর এই নিয়েই শুরু হয়েছে চরম বিতর্ক।

তবে যাঁর প্রচার নিয়ে বিতর্কের সূত্রপাত তৃণমূল কংগ্রেসের সেই প্রার্থী বাদল পুইতন্ডি জানান,  তিনি কোভিড বিধি মেনে ভোটের প্রচার করেছেন। কিন্তু ওয়ার্ডের মানুষ এই প্রচারে মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জীর উন্নয়নের সাথে সামিল হতেই প্রচার কর্মসূচিতে সামিল হয়েছেন। সব থেকে বড় কথা প্রচার কর্মসূচিতে কাউকে মানা করা যায়না। বলা যায়না প্রচারে তোমরা এসোনা। তবুও সকলকে অনুরোধ করছি। কারণ কোভিড বিধি মেনেই কমলোক জন নিয়ে ভোটের প্রচার শুরু করেছিলাম। তবে মমতা ব্যানার্জী পাশে থাকতে সকলে প্রচারে বেরিয়ে পড়ছে।


Post a Comment

0 Comments