চৈতন্য মহাপ্রভু'র নামে নব নির্মিত তোরণ উদ্বোধন কাটোয়ার দাঁইহাটে

শতবর্ষে বর্ধমান ডিস্ট্রিক্ট রাইস মিলস অ্যাসোসিয়েশন # উচ্চ মাধ্যমিকে রাজ্যের সেরা অদিশা দেবশর্মা, দশের মেধা তালিকায় ২৭২ জন # আধার কার্ডের ফটোকপির অপব্যবহার রুখতে বিজ্ঞপ্তি জারি # ইউনেস্কো'র সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের তালিকায় পশ্চিমবঙ্গের দুর্গাপুজো # বাংলার চিকিৎসক উজ্জ্বল পোদ্দার স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের সেরার তালিকায়সরকারি কর্মচারীদের সুখের দিন শেষ, শ্রম কোড চালু হতে চলেছে সমগ্র ভারতে পশ্চিমবঙ্গে কোভিড বিধিনিষেধ প্রত্যাহার #পূর্ব বর্ধমান জেলায় মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ এর উদ্যোগে খালবিল ও চুনোমাছ উৎসবের উদ্বোধন ২৫ ডিসেম্বর

স্বামী বিবেকানন্দ সেবাশ্রমের বার্ষিক অনুষ্ঠান


 

স্বামী বিবেকানন্দ সেবাশ্রমের বার্ষিক অনুষ্ঠান 


অতনু হাজরা, জামালপুর : পূর্ব বর্ধমান জেলার জামালপুরের পাড়াতল অঞ্চল স্বামী বিবেকানন্দ সেবাশ্রম তাঁদের বার্ষিক অনুষ্ঠানটি আজ সম্পন্ন করলো। প্রতি বছরই পুজোর আগে এই অনুষ্ঠানটি তাঁরা করে থাকেন। পাড়াতল অঞ্চল স্বামী বিবেকানন্দ সেবাশ্রম  এলাকার একটি পরিচিত নাম। কারণ বছরের বিভিন্ন সময়ে তাঁরা নানা সমাজ কল্যাণ মূলক কাজ করে থাকেন। গত দু'বছর ধরে কোভিড পরিস্থিতিতে তাঁরা মানুষকে প্রচুর পরিষেবা দিয়েছেন। প্রচুর মাস্ক ও স্যানিটাইজার বিলি করার সাথে অসহায় মানুষদের হাতে খাদ্যসামগ্রী পৌঁছে দিয়েছেন। কোভিড পরিস্থিতিতে মানুষকে সচেতন করতে বিভিন্ন এলাকায় এলাকায় তাঁরা প্রচার করেছেন। আজকের অনুষ্ঠান কোভিড পরিস্থিতিতে খুবই ছোট করে করা হয়। সকাল থেকেই ঠাকুর-মা- স্বামীজীর পূজা অর্চনা চলে ষোড়শ উপাচারে পূজা করা হয়। 


আজকের এই অনুষ্ঠানে বেলুড় রামকৃষ্ণ মঠের দুজন স্বামী আনন্দময়ানন্দজী মহারাজ ও স্বামী কেবলানন্দজী মহারাজ আসেন। তাঁদের নিয়ে একটি ভগবৎ আলোচনা রাখা হয়। এছাড়াও আসন্ন শারদীয়া উৎসব উপলক্ষ্যে অসহায় ১২৫ জন মানুষের হাতে বস্ত্র তুলে দেওয়া হয় ও তাদের মধ্যাহ্নভোজন করানো হয়। এই মহতি অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়েছিলেন জামালপুর পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি মেহেমুদ খান। 

তিনি বলেন এই প্রতিষ্ঠান দীর্ঘ দিন ধরেই নানান সামাজিক কাজ করে আসছে। তাঁদের এই কাজের জন্য তিনি তাঁদের ধন্যবাদ জানান ও তাঁদের শ্রীবৃদ্ধি কামনা করেন। পাড়াতল অঞ্চল স্বামী বিবেকানন্দ সেবাশ্রমের সম্পাদক অনুপ কুমার দত্ত জানান, তাঁরা এই আশ্রমের পক্ষ থেকে সারাবছরই নিরবিচ্ছিন্নভাবে নানান সামাজিক কাজ করেন। কোভিড কারণে আজকের অনুষ্ঠান তাঁরা খুবই ছোট করে করছেন। সারাদিন পূজা পাঠ, ভগবত আলোচনা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও ১২৫ জনকে বস্ত্র দান করা হয়।


Post a Comment

0 Comments