চৈতন্য মহাপ্রভু'র নামে নব নির্মিত তোরণ উদ্বোধন কাটোয়ার দাঁইহাটে

উচ্চ মাধ্যমিকে রাজ্যের সেরা অদিশা দেবশর্মা, দশের মেধা তালিকায় ২৭২ জন # মাধ্যমিকে যুগ্ম প্রথম বর্ধমান সিএমএস হাই স্কুলের রৌনক মন্ডল এবং বাঁকুড়ার রাম হরিপুর রামকৃষ্ণ মিশনের অর্ণব ঘড়াই # আধার কার্ডের ফটোকপির অপব্যবহার রুখতে বিজ্ঞপ্তি জারি # ইউনেস্কো'র সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের তালিকায় পশ্চিমবঙ্গের দুর্গাপুজো # বাংলার চিকিৎসক উজ্জ্বল পোদ্দার স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের সেরার তালিকায়মাধ্যমিকের পর উচ্চমাধ্যমিকেও তাক লাগালো কাটোয়ার অভীক পশ্চিমবঙ্গে কোভিড বিধিনিষেধ প্রত্যাহার #১০০ দিনের কাজের বকেয়া টাকা নিয়ে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে তৃণমূল কংগ্রেসের আন্দোলন

পশ্চিম বর্ধমানে বিশ্ব পরিবেশ দিবসে সবুজায়নের বার্তা


 

পশ্চিম বর্ধমানে বিশ্ব পরিবেশ দিবসে সবুজায়নের বার্তা



কাজল মিত্র, পশ্চিম বর্ধমান : এই মুহূর্তে সমগ্র বিশ্ব এক ভয়াল মহামারী গ্রাসে আক্রান্ত। চারিদিকে অক্সিজেনের জন্য চলছে হাহাকার। কত প্রাণ চলে যাচ্ছে অকালে শুধু একটু অক্সিজেনের অভাবে।অথচ এমনটা হওয়ার কথা ছিল না। এই অভিশাপ আমরা এনেছি প্রকৃতির অমোঘ দান কে অবহেলা করে। বিনা কারণে যথেচ্ছ ভাবে গাছ কেটে। আজ তার ফলস্বরূপ প্রকৃতির মার। এই দান কে আমাদের টাকা দিয়ে কিনতে হচ্ছে। আর তাই বিভিন্ন জায়গায় পালিত বৃক্ষরোপন এর মধ্যে দিয়ে পরিবেশ দিবস। আর এদিন 'সঙ্কল্প ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশন' এর তরফ থেকেও পরিবেশ এর ভারসাম্য বজায় রাখার সংকল্প নিয়ে এই দিনটি পালন করে।




এদিন সংকল্প ফাউন্ডেশন এর পক্ষ থেকে সংস্থার সভাপতি বাপ্পা চ্যাটার্জি বলেন, যত বেশি সম্ভব বৃক্ষ রোপন করা এবং যথাযথ তার দেখাশোনার দায়িত্ব তারা সঙ্কল্প করে নিলেন। যাতে অক্সিজেনের অভাবে আর কেউ প্রাণ না হারায়। আমাদের পরিবেশ তার স্নিগ্ধ সবুজ রূপ ফিরে পায়। এবং সংকল্পবদ্ধ পরিবেশ রক্ষার্থে সকল আসানসোলবাসীকে আহ্বান জানিয়ে প্রত্যেকে অন্তত একটি করে গাছ লাগানোর বার্তা দেন ।এদিন তিনি বলেন আজকে তাদের পক্ষ থেকে আম, জাম, বেদানা, সুপারি, নারকেল, ইউক্যালিপটাস, নিম, বট ইত্যাদি বৃক্ষ রোপণ এবং বৃক্ষ দান করা হল। এই কার্যক্রমে উপস্থিত ছিলেন কোষাধ্যক্ষ চন্দন বাউরি সহ রাজীব গিরি, সুমন চক্রবর্তী, সুজয় মুখার্জি, তাপস পাল, পবন চৌধুরী, রাজু সিং, দেবজিত সরকার এবং পারমিতা ব্যানার্জী এবং অন্যান্যরা।



কাঁকসায় ট্রাফিক পুলিশের উদ্যেগে বৃক্ষরােপন




বিশ্ব পরিবেশ দিবস উপলক্ষে কাঁকসা ট্রাফিক গার্ডের অফিস চত্বরে বৃক্ষরোপন করে সকলকে বৃক্ষ রোপন করার আবেদন জানালেন আসানসোল দুর্গাপুর পুলিশ কমিশনারেটের পুলিশ আধিকারিকরা।

শনিবার কাঁকসার বিরুডিহা সংলগ্ন কাঁকসা ট্রাফিক গার্ড পুলিশের উদ্যোগে অফিস চত্বরে আম, জাম, কাঁঠাল, লিচু, জামরুল, লেবু, সুপারি, নারকেল, সহ একাধিক বৃক্ষ রোপন করেন আসানসোল দুর্গাপুর পুলিশ কমিশনারেট ডিসিপি ট্রাফিক- আইপিএস আনন্দ রায়, এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন এসিপি কাঁকসা তথা ট্রাফিক শ্রীমন্ত কুমার বন্দোপাধ্যায়, কাঁকসা ট্রাফিক গার্ডের ওসি ট্রাফিক সুদীপ রায় সহ ট্রাফিক পুলিশ কর্মীরা।




ডিসিপি ট্রাফিক আনন্দ রায় জানিয়েছেন পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষা করতে একমাত্র উপায় হলো প্রচুর পরিমাণে বৃক্ষ রোপণ করতে হবে সকলকে। যত পরিমাণে বৃক্ষরোপণ হবে ততো পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষা হবে। বৃক্ষরোপণ করে সাধারণ মানুষকে উৎসাহ বাড়িয়ে সেই বার্তাই দিলেন ট্রাফিক পুলিশ আধিকারিকরা।



সালানপুর থানায় বৃক্ষ রােপন 




৫ জুন বিশ্ব পরিবেশ দিবস উপলক্ষে সালানপুর থানায় এই দিনটি বৃক্ষরােপনের মধ্য দিয়ে উদযাপন করা হলাে। সালানপুর থানার উদ্যোগে এই অনুষ্ঠানে থানা প্রাঙ্গনে বেশ কয়েকটি চারা গাছ রােপন করেন সালানপুর থানার ইনচার্জ পবিত্র গাঙ্গুলি ও কল্যানেশ্বরি ফাঁড়ির ইনচার্জ অমরনাথ দাস। লকডাউনের সামাজিক বিধি মেনে বেশি আড়ম্বর না করে সামান্য তম পরিবেশ দিবস উদযাপন করতে এই বৃক্ষরোপন অনুষ্ঠান করা হয়।

এদিন সালানপুর থানার আধিকারিক পবিত্র গাঙ্গুলি জানান কয়েকদিন আগে বিধ্বংসী ঘূর্ণিঝড় যস এর ধ্বংসলীলায় এ রাজ্যের হাজার হাজার গাছ নষ্ট হয়েছে ৷ পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষার অন্যতম কারিগর হচ্ছে বৃক্ষ। তাই সমস্ত রাজ্যবাসীর কাছে আবেদন আপনারা যে যেখানে পারেন বৃক্ষ রােপন করে পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষার কাজে সাহায্য করুন৷ সেইমতাে কর্মসূচি নেওয়া শুরু হয়েছে। আজ বিশ্ব পরিবেশ দিবসে বাংলার নানা জায়গায় বৃক্ষরােপণ গাছ বিতরনের মধ্য দিয়ে বিশ্ব পরিবেশ দিবসটি উদযাপন করা হচ্ছে এদিন এই কর্মসূচি তে অন্যান্য পুলিশ কর্মী ও আধিকারিকরাও উপস্থিত ছিলেন ।




Post a Comment

0 Comments