চৈতন্য মহাপ্রভু'র নামে নব নির্মিত তোরণ উদ্বোধন কাটোয়ার দাঁইহাটে

হাওড়া-নিউ জলপাইগুড়ি বন্দে ভারত এক্সপ্রেসের যাত্রার সূচনা করলেন প্রধানমন্ত্রী # ফুটবলে আর্জেন্টিনার বিশ্বজয়, ফ্রান্স কে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ান মেসি # জয়েন্ট এন্ট্রান্স (মেইন) এর প্রথমভাগের পরীক্ষা ২৪ জানুয়ারি থেকে ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত # বর্ধমান জেলা রাইস মিলস অ্যাসোসিয়েশন এর শতবর্ষ পূর্তি উদযাপন # বাংলার চিকিৎসক উজ্জ্বল পোদ্দার স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের সেরার তালিকায় #সরকারি কর্মচারীদের সুখের দিন শেষ, শ্রম কোড চালু হতে চলেছে সমগ্র ভারতে # পশ্চিমবঙ্গে কোভিড বিধিনিষেধ প্রত্যাহার # #পূর্ব বর্ধমান জেলায় মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ এর উদ্যোগে খালবিল ও চুনোমাছ উৎসবের উদ্বোধন ২৫ ডিসেম্বর

লায়ন্স ক্লাবের পক্ষ থেকে অসহায় মানুষদের কম্বল দান


 

লায়ন্স ক্লাবের পক্ষ থেকে অসহায় মানুষদের কম্বল দান


অতনু হাজরা, জামালপুর : পূর্ব বর্ধমানের জামালপুর লায়ন্স ক্লাব করোনা পরিস্থিতিতে তাদের স্বাভাবিক কাজকর্ম বন্ধ রেখেছিলেন। কিন্তু বর্তমানে পরিস্থিতির কিছুটা উন্নতি হতে তারা তাদের স্বাভাবিক কাজকর্ম শুরু করেছে কোভিড বিধি মেনে। বুধবার ও আজ তারা দুদিনে দুটি কর্মসূচি পালন করে। গতকাল তারা ফিজিও কেয়ার এন্ড কিউর এর সাথে যৌথ ভাবে ফিজিওথেরাপির উপর একটি সম্পূর্ন বিনামূল্যে একটি ক্যাম্প করে। ছিলেন স্বনামধন্য চিকিৎসক ডা: আদিত্য কুমার পাল। মোট ৮৮ জন রুগী এই চিকিৎসার সুযোগ পান। আজ তারা তাদের ক্লাব প্রাঙ্গণ থেকে ১৮৫ জন অসহায় মানুষের হাতে শীতের কম্বল বিলি করে। এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জামালপুর থানার অফিসার ইন চার্জ অরুণ কুমার সোম।




 ক্লাবের পক্ষ থেকে প্রদীপ কুমার রায় জানান জামালপুর লায়ন্স ক্লাব কোভিড পরিস্থিতিতে দীর্ঘদিন স্বাভাবিক কাজকর্ম থেকে বিরত ছিল। কিন্তু এখন স্বভাবিক ছন্দে ফিরেছে। নতুন করে চোখের অপারেশন শুরু হয়েছে। হাসপাতালের স্বাভাবিক ভাবে রুগী দেখা হচ্ছে। তবে সবই হচ্ছে কঠোর ভাবে কোভিড বিধি মেনে।




 আজ প্রায় ১৭৫ জন অসহায় মানুষের হাতে শীতের কম্বল তুলে দেওয়া হয়েছে তাঁদের পক্ষ থেকে। আগামীতে আরো কিছু কর্মসূচি তাঁরা নেবেন বলে জানান। এর সাথে তিনি আরো বলেন জামালপুর লায়ন্সের যে একাডেমি ছিল যাতে আঁকা, নাচ, প্রভৃতি শেখানো হয়, সেটি আবার পুনরায় চালু করা হয়েছে। অসহায় মানুষ এই সাহায্য পেয়ে যথেষ্ট খুশি। আজকের এই অনুষ্ঠানে লায়ন্স ক্লাবের সমস্ত সদস্য ও কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

Post a Comment

0 Comments